1. info@dainikashardigonto.com : দৈনিক আশার দিগন্ত : দৈনিক আশার দিগন্ত
  2. info@www.dainikashardigonto.com : দৈনিক আশার দিগন্ত :
শনিবার, ১৮ মে ২০২৪, ১০:০৬ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালিত শিক্ষার্থীদের মাঝে ক্রেস্ট ও বই বিতরণ করলেন ছাত্রনেতা ইমন হোসেন কাজিপুরে টেকনিক্যাল মাষ্টার বাবা অসুস্থতার সুযোগ নিয়ে প্রতিবেশি নাড়ীকে ধর্ষন করে ভিডিও ধারন  প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালন কালীগঞ্জের আড়িখোলা স্টেশনে ট্রেন থামানোর দাবিতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত লোহাগড়ার ইউপি চেয়ারম্যানকে গুলি করার ঘটনায় ৪ জনকে গ্রেফতার কালিগঞ্জে গভীর রাতে মোবাইল কোর্ট,৬ ড্রামট্রাকসহ ৩ জন আটক শেষ মুহুর্তে জমে উঠেছে কালিয়াকৈর উপজেলা নির্বাচন নবাবগঞ্জ সরকারি কলেজের ছাত্রী হোস্টেলে বিদায় ও পুরস্কার বিতরণ  কালিয়ায় পঁচিশ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট সহ একজন গ্রেফতার

ডোমারে চেকাডারা নদী খনন কাজের উদ্বোধন

  • প্রকাশিত: বুধবার, ২০ মার্চ, ২০২৪
  • ১৫ বার পড়া হয়েছে

আব্দুর রশিদ,ডোমার(নীলফামারী)প্রতিনিধিঃ

বরেন্দ্র বহুমুখী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের ‘ইআইআর’ প্রকল্পের আওতায় নীলফামারীর ডোমার উপজেলার চেকাডারা নদীর পুনঃখনন কাজের উদ্বোধন করা হয়েছে আজ।বুধবার (২০ মার্চ)সকালে বিএমডিএর “ইআইআর” প্রকল্পের আওতায় খনন কাজের শুভ উদ্বোধন করেন,নীলফামারী-১ আসনের সংসদ সদস্য প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব আফতাব উদ্দিন সরকার।এ সময় উপস্থিত ছিলেন ডোমার উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান তোফায়েল আহমেদ, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ নাজমুল আলম, বিএমডিএর নীলফামারী রিজিয়নের নির্বাহী প্রকৌশলী মোফাজ্জল হোসেন,সহকারী প্রকৌশলী ডোমার জোন এ কে এম ফজলুল হক, প্রকৌশলী মেহফুজ আলম,ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল মালেক সরকার,বোড়াগাড়ী ইউপি চেয়ারম্যান আমিনুল ইসলাম রিমুন, রিভারাইন পিপল নীলফামারী জেলা সমন্বয়ক আব্দুল ওয়াদুদ প্রমূখ সহ স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ ও সাধারণ এলাকাবাসী।

উল্লেখ্য,ডোমার উপজেলার কেতকীবাড়ী ইউনিয়নের চান্দখানা এলাকার বিলাঞ্চল থেকে নদীটির উৎপত্তি হয়ে জোড়াবাড়ী ও বোড়াগাড়ী ইউনিয়নের উপর দিয়ে প্রবাহিত হয়ে ডোমার উপজেলা পরিষদের নিকট শালকি নদীতে গিয়ে মিলিত হয়। ১৫কিলোমিটার দৈর্ঘ্য নদীটির উজানে হরিরডারা এবং ভাটিতে চেকাডারা নামে পরিচিত। নদীটি চুঙ্গাডাঙ্গা নামে বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ডের তালিকাভূক্ত। যার পরিচিতি নম্বর উত্তর-পশ্চিমাঞ্চল নদী নং- ৪৩। নদীটির ভূ-উপরিস্থ পানির সর্বোত্তম ব্যবহার ও বৃষ্টির পানি সংরক্ষণের মাধ্যমে বৃহত্তর রংপুর বিভাগে সেচ সম্প্রসারণ (ইআরআই) প্রকল্পের আওতায় নদীটি পুনঃখননের উদ্যোগ গ্রহণ করে বরেন্দ্র বহুমুখী উন্নয়ন কতৃপক্ষ (বিএমডিএ)। ইতিমধ্যে নদীটিতে পানি মজুদের জন্য ৩টি রেগুলেটর (সুইচগেট) নির্মিত হয়েছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
𝐂𝐫𝐚𝐟𝐭𝐞𝐝 𝐰𝐢𝐭𝐡 𝐛𝐲: 𝐘𝐄𝐋𝐋𝐎𝐖 𝐇𝐎𝐒𝐓